Download WordPress Themes, Happy Birthday Wishes

গেমিং এর জন্য বেস্ট বাজেট স্মার্টফোন!

গেমিং কেনা পছন্দ করেন? শিশু থেকে আজকের তরুন সবার পছন্দের তালিকায় শীর্ষে নানারকম স্মার্টফোন গেমস। অবসরে, কাজের ফাঁকে, স্কুল-কলেজ থেকে ফিরে প্রিয় স্মার্টফোনটি নিয়ে গেমস খেলতে বসা নতুন কোন দৃশ্য নয়! তাই এখন প্রাপ্তবয়স্ক সকল ব্যবহারকারিদের নতুন স্মার্টফোন কেনার ক্ষেত্রে, অনেক বড় একটি চাহিদা জুড়ে থাকে স্মার্টফোনটি ঠিক কতটা গেমিং কম্প্যাটিবল! বর্তমান সময় একটি গ্রহণযোগ্য গেমিং কম্প্যাটিবিলিটি ছাড়া স্মার্টফোন কারোরই পছন্দ নয়। বাজার গবেষণা করে দেখলে, হালের জনপ্রিয় কিছু গেমস যেমনঃ পাবজি, ফ্রিফায়ার, কলঅফডিউটি এসব গেমস যেসকল স্মার্টফোনে ভালোভাবে চলে; গেমিং শ্রেণির গ্রাহকরা সেই স্মার্টফোনগুলোই বেশি পছন্দ করে থাকেন।

নতুন স্মার্টফোন কেনার ক্ষেত্রে গেমিং কম্প্যাটিবিলিটি অনেকের অন্যতম শর্ত থাকলেও, আমাদের দেশের বাজারে বাজেট ম্যাটার করে! সিংহভাগ ক্রেতা স্মার্টফোন কেনার ক্ষেত্রে লো-মিড বাজেটে তাদের সকল চাহিদা পূরণ করবে এমন সব স্মার্টফোন খোঁজেন। তবে বিদেশি ব্র্যান্ডের স্মার্টফোনের ক্ষেত্রে এসকল বাজেটে কিছু চাহিদা পূরণ করতে পারলেও, সেসব ফোনে গ্রাহকের সকল চাহিদা কখনই পূরণ হয়না। বিশেষ করে লো-মিড বাজেটে গেমিং এর জন্য বিদেশি ব্র্যান্ডের মনমত স্মার্টফোন খুঁজে পাওয়াও দুষ্কর! লো-মিড বাজেটের ভেতর ভালো মানের একটি গেমিং স্মার্টফোন কিনতে চাইলে, আপনার অন্যতম পছন্দ হতে পারে দেশীয় মোবাইল উৎপাদনকারি প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন।

গেমিং স্মার্টফোন কেনার ক্ষেত্রে আমরা এই লেখায়, ওয়ালটনের তিনটি বাজেট কিলার স্মার্টফোন সম্পর্কে কথা বলব। আপনার সাধ্যের মধ্যে এই দামে এই তিনটি স্মার্টফোন আশা করা যায়, আপনার স্মার্টফোন গেমিংএর চাহিদা তো পূর্ণ করবেই তেমনিভাবে আদর্শ স্মার্টফোন হতে অন্যান্য চাহিদাগুলোও পূরণ করবে।

আলোচনার প্রথমেই আমরা তুলে ধরব ওয়ালটনের প্রিমো আরএক্স৮ স্মার্টফোনটিকে। ডিভাইসটির দাম ১৫৫৯৯ টাকা।


প্রিমো আরএক্স৮ঃ ৪ জিবি র‍্যাম এবং ১২৮ জিবি ইন্টারনাল মেমোরির সাথে, প্রিমো আরএক্স৮ ডিভাইসকে পাওয়ারআপ করবে ১২ ন্যানোমিটার ফিনটেক প্রযুক্তিতে তৈরি ২ গিগাহার্জ ক্লকস্পিডের অক্টাকোর প্রসেসর। এর সাথে জিপিইউ হিসেবে থাকছে PowerVR Rogue GE8320। মূলত এটি Helio P22 চিপসেট। শক্তিশালী হার্ডওয়্যার সেটাপের সাথে এই প্রিমো আররক্স৮ হতে পারে দারুন বাজেটে আপনার গেমিং এর জন্য পরবর্তী আদর্শ স্মার্টফোন।

গেমিং এর জন্য বড় ডিসপ্লে আবশ্যক! আর প্রিমো আরএক্স৮ এ পেয়ে যাবেন পাঞ্চ-হোল ক্যামেরা বিশিষ্ট ৬.৫৫ ইঞ্চি LTPS ডিসপ্লে প্যানেল।

কেবল যে গেমিং এ সাপোর্ট পাবেন তা কিন্তু নয়! প্রিমো আরএক্স৮ ডিভাইসটিতে দেখা পেয়ে যাবেন শক্তিশালী কোয়াড ক্যামেরা সেটাপের। ফোনটির ফ্রন্ট প্যানেলে রয়েছে ৩২ মেগাপিক্সেল সেলফি ক্যামেরা। যেমন হবে গেমিং- মাল্টি টাস্কিং, তেমনি ভাবে সমান তালে ফটোগ্রাফির দিক দিয়েও স্মার্টফোনটি অনবদ্য! ফোনটির এন্টুটু বেঞ্চমার্ক স্কোর ১১০৩৫৫। আর গিক বেঞ্চে সিঙ্গেল কোরে ১৫১ এবং মাল্টি কোরে ৮৭৩। স্মার্টফোনটি সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে দেখে আসতে পারেন এই রিভিউ ভিডিওটি।

আলোচনায় দ্বিতীয় যে স্মার্টফোনটি সেটি হচ্ছে, প্রিমো আর৮। ডিভাইসটির দাম ১০৬৯৯ টাকা।


প্রিমো আর৮ঃ একইভাবে ৪ জিবির সাথে ফোনটিতে ব্যবহার করা হয়েছে মিডিয়াটেকের গেমিং সিরিজের প্রসেসর। প্রিমো আর৮ স্মার্টফোনটিতে ব্যবহার করা হয়েছে হেলিও জি৩৫ চিপসেট। যা একটি অক্টাকোর ২.৩ গিগাহার্জ ক্লকস্পিডের প্রসেসর। আর এই প্রসেসর এর সাথে গ্রাফিক্স ইউনিট হিসেবে পেয়ে যাবেন পাওয়ারভিআর জিই৮৩২০ জিপিইউ। ফোনটির ইন্টারনাল মেমোরিতে ৬৪ জিবি স্টোরেজ।

বড় ডিসপ্লে না হলে গেমিংও জমে না! আর সেই দিক থেকেও চিন্তার অবকাশ রাখবে না প্রিমো আর৮ স্মার্টফোনটি। ফোনটিতে পেয়ে যাবেন ৬.৫ ইঞ্চি আইপিএস ডিসপ্লে। সারাদিন নির্বিঘ্নে ব্যাটারি ব্যাকআপ দেবার জন্য এতে পেয়ে যাবেন ৫০০০ এমএইচ ব্যাটারি। ফোনটির এন্টুটু বেঞ্চমার্ক স্কোর ১০৬২২৯। আর গিক বেঞ্চে সিঙ্গেল কোরে ১৭৭ এবং মাল্টি কোরে ৯৮০। স্মার্টফোনটি সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে দেখে আসতে পারেন এই রিভিউ ভিডিওটি।

আমাদের আলোচনায় সর্বশেষ ফোনটি হচ্ছে প্রিমো এন৫। ডিভাইসটির দাম ১২৪৯৯ টাকা।


প্রিমো এন৫ঃ মিডিয়াটেক এর হেলিও জি২৫ চিপসেট সহ ৪ জিবি র‍্যাম এবং ৬৪ জিবি স্টোরেজের এই স্মার্টফোনটি যেমন আপনার গেমিং এর চাহিদা মেটাতে পারবে, তেমনি মেটাতে পারবে অন্যসব ডেইলি ড্রাইভার চাহিদাও! ফোনটির হার্ডওয়্যারের সাথে এর সিস্টেম খুবই রকমের অপ্টিমাইজড, যার সুবিধা পাবেন স্মার্টফোনটি দিয়ে গেমিং করেও! প্রিমো এন৫ এর রিস্টার্ট টাইম খুবই ফাস্ট মাত্র ৩৯ সেকেন্ড!

আজকের তালিকায় আমাদের আলোচিত অন্যসকল স্মার্টফোনের মধ্যে এই প্রিমো এন৫ এর ডিসপ্লেটি সবচেয়ে বড়! এতে পেয়ে যাবেন ৬.৮২ ইঞ্চি ডিসপ্লে। আর গেমিং এর সময় বিগ ডিসপ্লে যে কতটা জরুরি সেটা আর বলার অপেক্ষা রাখেনা! গেমিং এর সময় সিস্টেমকে বুস্ট করবার জন্য প্রিমো এন৫ স্মার্টফোনে রয়েছে হাইপার ইঞ্জিন প্রযুক্তি। গেম খেলতে খেলতে আপনাকে ব্যাটারি নিয়েও চিন্তা করতে হবেনা, কেননা এতে পেয়ে যাবেন আপনি ৫৫০০ এমএএইচ ব্যাটারি। স্মার্টফোনটির এনটুটু বেঞ্চমার্ক স্কোর পাওয়া গিয়েছে ৯১৪০০ এর আশেপাশে, আর গিক বেঞ্চে সিঙ্গেল কোরে এসেছে ১৪৩ এবং মাল্টি কোরে এসেছে ৮৬০। স্মার্টফোনটি সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে দেখে আসতে পারেন এই রিভিউ ভিডিওটি।

এই ছিল আপনার সাধ্যের বাজেটে গেমিং এর জন্য কেনার মতো ওয়ালটনের তিনটি স্মার্টফোন। স্মার্টফোনগুলো সম্পর্কে আরো বিস্তারিত জানতে রিভিউ ভিডিও গুলো দেখে আসতে পারেন। স্মার্টফোনের মতো ইলেক্ট্রনিকস ডিভাইস আপনি কিনবেন, একদিনের জন্য নয়, নিশ্চয় বহুদিন ব্যবহারের জন্য। তাই কষ্টের টাকা কোনভাবেই বৃথা যেতে দেবার নয়।